বাংলানির্মিতিভাবসম্প্রসারণ

ভাবসম্প্রসারণঃ ধ্বনিটিরে প্রতিধ্বনি সদা ব্যঙ্গ করে, ধ্বনির কাছে ঋণী সে যে পাছে ধরা পড়ে

ধ্বনিটিরে প্রতিধ্বনি সদা ব্যঙ্গ করে, ধ্বনির কাছে ঋণী সে যে পাছে ধরা পড়ে

আজকের পোস্টে তোমাকে স্বাগতম। আজকের এই পোস্টে আমরা একটি ভাবসম্প্রসারণ দেখব – ধ্বনিটিরে প্রতিধ্বনি সদা ব্যঙ্গ করে, ধ্বনির কাছে ঋণী সে যে পাছে ধরা পড়ে। এই ভাবসম্প্রসারণটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ একটি ভাবসম্প্রসারণ। এটি অনেকবার পরীক্ষায় কমন পড়ে।

তুমি যেই শ্রেণিতেই পড়োনা কেন – এই ভাবসম্প্রসারণটি যদি তুমি মুখস্ত রাখো তাহলে তোমার পরীক্ষায় কমন পড়ার চান্স অনেক বেশি। আর এইজন্যই আজকে আমরা একটি খুবই সহজ এবং মুখস্ত করার মতো ভাবসম্প্রসারণ নিয়ে এসেছি।

তাহলে চলো, শুরু করা যাক।

ধ্বনিটিরে প্রতিধ্বনি সদা ব্যঙ্গ করে, ধ্বনির কাছে ঋণী সে যে পাছে ধরা পড়ে

মূলভাব : উপকারির উপকারকে অস্বীকার করার মধ্যে রয়েছে জঘন্য হীনম্মন্যতা।

সম্প্রসারিত ভাব : ধ্বনি থেকে সৃষ্টি হয় প্রতিধ্বনি। তাই ঋণ স্বীকারের প্রশ্নে প্রতিধ্বনিকে ধ্বনির কাছে কৃতজ্ঞতা কর উচিত। কিন্তু প্রতিধ্বনি তা না করে উল্টো ধ্বনিকে সর্বদা ব্যঙ্গ করে। ধ্বনির এ ধরণের কার্যকলাপের মধ্যে তার অকৃতজ্ঞ চিত্তের প্রকাশ ঘটে। আমাদের সমাজ জীবনেও এক ধরণের সংকীর্ণচিত্ত অকৃতজ্ঞ লোক দেখা যায়— যারা কখনোই উপকারির উপকার স্বীকার করে না। বরং পরিহাসের মাধ্যমে নিজেদের হীনম্মন্যতাকেই প্রকাশ করে। অন্যের সাহায্য সহযোগিতা ও দয়া-দাক্ষিণ্যে যদি কারো জীবন বিকশিত ও সাফল্যময় হয়ে ওঠে— সেক্ষেত্রে উপকারির সাহায্য-সহযোগিতার স্বীকৃতি প্রদান করা উচিত। কিন্তু উপকার গ্রহণকারী তা না করে উপকারির প্রতি পরিহাস করে নিজের স্বীয় যোগ্যতার প্রমাণ রাখতে চায়। কিন্তু সত্যকে কখনোই গোপন রাখা যায় না। তার আসল পরিচয় একদিন বেরিয়ে পড়ে আত্মগর্বী অকৃতজ্ঞকে পরিহাস করে। তার নীচতা সহজেই ধরা পড়ে। ধ্বনি ছাড়া প্রতিধ্বনি অস্তিত্বহীন। হীনম্মন্যতাবশত প্রতিধ্বনি যেমন তা অস্বীকার করে— সমাজেও প্রতিধ্বনির মতো সত্য গোপনকারী অকৃতজ্ঞ অনেক লোক রয়েছে। তাদের বিবেক এমনই ভ্রষ্ট যে, সত্য প্রকাশে তারা কুণ্ঠিত। ঋণ স্বীকারে যে অগৌরবের কিছু নেই— এ সহজ সত্যটি তারা কখনোই স্বীকার করে না । তারা চায় নিজেকে বড় করে উপস্থাপন করতে ।

See also  আবেদন পত্রঃ গ্রামে একটি ডাকঘর স্থাপনের অনুরোধ জানিয়ে আবেদন পত্র লেখ

মন্তব্য : উপকারির উপকারকে অস্বীকার করা হীনম্মন্যতার লক্ষণ। জীবনে উন্নতি ও সাফল্যের মূলে যাদের দান রয়েছে, তাদের উপকার স্বীকার করা উচিত ।

আরও পড়ুনঃ

সম্পূর্ণ পোস্টটি মনোযোগ দিয়ে পড়ার জন্য তোমাকে অসংখ্য ধন্যবাদ। আশা করছি আমাদের এই পোস্ট থেকে ভাব সম্প্রসারণ যেটি তুমি চাচ্ছিলে সেটি পেয়ে গিয়েছ। যদি তুমি আমাদেরকে কোন কিছু জানতে চাও বা এই ভাব সম্প্রসারণ নিয়ে যদি তোমার কোনো মতামত থাকে, তাহলে সেটি আমাদের কমেন্টে জানাতে পারো। আজকের পোস্টে এই পর্যন্তই, তুমি আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করে আমাদের বাকি পোস্ট গুলো দেখতে পারো।

Related posts

ভাবসম্প্রসারণঃ বিদ্যা অমূল্য ধন

Swopnil

আবেদন পত্রঃ বিনা বেতনে অধ্যয়নের জন্য প্রধান শিক্ষক বরাবর একটি আবেদন পত্র লেখ

Swopnil

প্রতিবেদনঃ বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা সম্পর্কিত একটি প্রতিবেদন রচনা কর

Swopnil

Leave a Comment